বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি
বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি

বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি ২০২২

Rate this post

বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি

আজকে আমরা জেনে নেবো বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি। আমাদের দেশে প্রচলিত একটি অতি সুস্বাদু খাবার হলো বিরিয়ানি। আমরা অনেকেই বিরিয়ানি রান্না করতে জানিনা। ফলের বাজার থেকে কেনা বিরিয়ানি খেয়েই আমাদের সাধ মেটাতে হয়।কতই না ভালো হতো যদি আমরা নিজেরাই সহজে তৈরি করে ফেলতে পারতাম বিরিয়ানি।এমনকি উৎসব-অনুষ্ঠানে নিজে নিজেই তৈরি করে ফেলা যায় বিরিয়ানি।

বিরিয়ানি তৈরির জন্য যে সকল উপাদান লাগবে তা হল: সয়াবিন তেল, বাসমতি চাল, গরু বা খাসির বা মুরগির মাংস, জায়ফল গুঁড়া, জয়ত্রী, কিসমিস, বিরিয়ানির স্পেশাল মশলা, লবণ, টক দই, কাঁচা মরিচ, গরম মসলা, ঘি, পেঁয়াজ বাটা, রসুন বাটা, আদা বাটা, আলুবোখরা

বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি

এবার জেনে নেই তৈরি করার পদ্ধতি:
প্রথমে একটি কড়াইয়ে কিছুটা সয়াবিন তেল ঢালী। এবার তাতে দারচিনি এলাচ যোগ করি। এলাচের রং হালকা বাদামি হলে তাতে বাসমতি চাল ঢেলে দেই। বাসমতি চাল ঢালার আগে অবশ্যই ভালোভাবে ধুয়ে নিতে হবে। এবার চাল ভালোভাবে নেড়ে মশলার সাথে মিশিয়ে ফেলি। এতে হালকা পানি যোগ করে নাড়তে থাকি।চাল অনেকটা সেদ্ধ হয়ে এলে একটি ঢাকনা দিয়ে ভালোভাবে ঢেকে দেই যেন বাইরের বাতাস ভেতরে প্রবেশ করতে না পারে।

এবার অন্য একটি কড়াইয়ে তেল নেই। তাতে পেঁয়াজ বাটা রসুন বাটা আদা বাটা, জায়ফলের গুড়া, জয়ত্রী, ঘি, লবণ দিয়ে ভালোভাবে কসাই।যাতে কড়াই এর সঙ্গে মসলার মিশ্রণ লেগে না ধরে সে জন্য হালকা পানি দিয়ে নাড়তে থাকি। একটি ঘন মিশ্রণ তৈরি হবে। এবার এতে আলুবোখরা এবং আস্ত কাঁচামরিচ দেই। এবং এরপর বিরিয়ানি মসলা যোগ করি। স্বাদ বাড়ানোর জন্য লেবু দেয়া যেতে পারে। বিরিয়ানি মসলা কষানো হয়ে গেলে তাতে টক দই যোগ করি। এবার পরিমাণমতো পানি দিয়ে ভালোভাবে নাড়তে থাকি। আমরা পরছি বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি ২০২২

বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি

এরপর মাংসের টুকরাগুলো এই মিশ্রণে যোগ করি। মাংসের চারপাশে যেন ভালোভাবে মসলা লাগে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। মসলাগুলো মাংসের গায়ে ভালোভাবে লাগার পরে একটি ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দেই। মাংস যতক্ষণ না সিদ্ধ হয় সে পর্যন্ত ঢাকনা বন্ধ রাখি। তবে এর মাঝে এসে ২/১ বার মাংস নেড়ে দিতে হবে। এতে মাংস পুড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা দূর হবে।

কিছুক্ষণ পর সব মাংস ভালোভাবে সেদ্ধ হয়ে গেলে, সিদ্ধ করা বাসমতি চাল মাংসের মধ্যে ঢেলে দেই। এরপর মাংস ও চাল পরস্পরের সাথে মেশানোর জন্য অনবরত নাড়তে থাকি। প্রায় ২০ মিনিট এভাবে করার পর, বিরিয়ানির উপর কিছুটা ঘি ঢেলে দেই। এবং হালকা আঁচে কিছুক্ষণ ঢেকে রাখি। ব্যস তৈরি হয়ে গেল গরম গরম বিরিয়ানি। ঘরে তৈরি বিরিয়ানি স্বাদ হয় আলাদা, এবং সেইসাথে স্বাস্থ্যসম্মত।
সুতরাং এভাবে আপনি খুব সহজেই ঘরে বসে বিরিয়ানি তৈরি করতে পারেন এবং প্রিয় জনকে সারপ্রাইজ দিতে পারেন। এটাই হল বর্তমানে বিরিয়ানি তৈরির ঘরোয়া সহজ রেসিপি ।

আরো জানতে

অপু বিশ্বাস সম্পর্কে কিছু তথ্য

About bdbarguna24

Leave a Reply Cancel reply